রবীন্দ্রনাথের প্রথম রেলভ্রমনের অভিজ্ঞতা –পর্ব ২

Bundesarchiv_Bild_102-11643,_Rabindranath_Tagoreআগের পর্বে বলেছিলাম রবীন্দ্রনাথের প্রথম রেলভ্রমণে একটি বিশেষ ঘটনা ঘটেছিল যা তাঁর মনে দাগ কেটে গিয়েছিল, ঘটনাটি বলার আগে তাঁরা যে ট্রেনের কামরাটিতে ভ্রমন করছিলেন তাঁর একটু বর্ণনা দেওয়া যাকঃ
রবীন্দ্রনাথ আর তাঁর পিতা মহর্ষি দেবেন্দ্রনাথ ছিলেন প্রথম শ্রেণীর কামরার যাত্রী।সেই সময় রেলে প্রথম, দ্বিতীয় ও তৃতীয় শ্রেণী- এই তিন শ্রেণীর কামরা ছিল। অবশ্য কিছুপরে দ্বিতীয় আর তৃতীয় শ্রেণীর মাঝামাঝি একটা ইণ্টারক্লাস চালু হয়েছিল।হয়েছিল।আর এই বিভিন্ন শ্রেণীর মধ্যে প্রথম শ্রেণীর কামরাগুলো সাধারণত ইউরোপীয়ান সাহেব আর ধনীদের জন্য বরাদ্দ ছিল।

তো কেমন ছিল সেই প্রথম শ্রেণীর কামরা? লেখকের ভাষায় তা বর্ননা করি
“ প্রথম শ্রেণীর কামরায় থাকত চারটি বার্থ, দুটো নীচে আর দুটো উপরে। কামরার একদিকে থাকত বড়ো টয়লেট বাথ- মনোরম স্নানঘর, আর অন্যপ্রান্তের মাঝখানে থাকত ম্যান্টেলপিস, আয়না আর ছোট র্যা ক। মেঝেতে বিছানো পুরু লিনেলিয়াম। কামরার ভিতর ও বাইরের সব হাতল ছিল ঝকঝকে পিতলের”
এখন যেমন ট্রেনে এসি কামরা দেখা যায়, তখনকার সময় কামরার ভিতরের হাওয়া ঠান্ডা রাখার জন্য ট্রেনের জানলার শাড়সিতে বরফের কুচি ছড়িয়ে দেওয়া হত আর সেই বরফের সংস্পর্শে এসে ভিতরের বাতাস ও আরামদায়ক ঠান্ডা ভাব প্রদান করতো।
ট্রেনের কামরায় যখন বরফ ব্যবহার করছে ঠান্ডা ভাবের জন্য, তখন বসতবাটি কিভাবে ঠান্ডা রাখা যায়?
ভারতে ইউরোপীয়ানরা বিয়ার বা পানির বোতল ঠান্ডা করতে “খুস খুস টাট্টিস” নামে এক বিশেষ পদ্ধতি ব্যবহার করত। বিশেষ এই পদ্ধতিতে সুগন্ধিযুক্ত ঘাস, পানি এবং বাতাসকে কাজে লাগিয়ে ঘরের ভেতরকার তাপমাত্রা ঠান্ডা এবং সহনশীল রাখা হতো। বিশেষ এই সনাতনী পদ্ধতিতে ভারতীয়রা পানিকে জমিয়ে বরফেও পরিণত করতে পারতো।

আরো পড়ুন

রবীন্দ্রনাথের প্রথম রেলভ্রমনের অভিজ্ঞতা –পর্ব ১

আওরঙ্গজেব তনয়া জেবুন্নেসা

খুঁতখুঁতে রবীন্দ্রনাথ-৩

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / Change )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / Change )

Connecting to %s

%d bloggers like this: